রোদের সাথী রোদ চশমা

আমাদের দেশে বেশ কয়েক বছর আগে থেকেই তারুন্যের নতুন ফ্যাশনে সানগ্লাস বাড়তি জনপ্রিয়তা যুক্ত করেছে। বাড়ি থেকে বের হলেই রঙচঙ্গা একটা সানগ্লাস ছাড়া ফ্যাশন যেন জমেই না।  বাইসাইকেল ও মোটরসাইকেল চলন্ত অবস্থায় বাতাসের ধুলাবালি এবং পোকা-মাকড় আমাদের চোখে এসে পড়তে পারে। আর এসব ধুলাবালি ও পোকামাকড় থেকে রক্ষা করে সানগ্লাস। সূর্যের অতিবেগুনী রশ্মি আমাদের চোখের কর্নিয়ার ও রেটিনার দারুণ ক্ষতি করে।

17352324_1821049338158354_6087745182969690247_n
মডেল : অনন্ত ইকবাল।

সানগ্লাস এই অতিবেগুনী রশ্মিকে শুধুমাত্র আমাদের চোখ আসতে বাঁধা প্রদানই করে না বরং তা প্রতিহত করে। তাই সানগ্লাস শুধু ফ্যাশনে নয়, চোখের সুরক্ষায়ও প্রয়োজন। বাহারি রঙ আর ভিন্ন ভিন্ন ডিজাইনে সমৃদ্ধ সানগ্লাসের সমাহার সারা বাংলাদেশ ব্যাপী ছড়িয়ে পড়েছে যদিও বর্হিবিশ্বে সানগ্লাসের ব্যবহার অনেক আগে থেকেই খুব জনপ্রিয়। আমাদের দেশে স্বাস্থ্য সচেতন এবং ফ্যাশনেবলরাই সব সময় সানগ্লাস ব্যবহার করে থাকেন।বিস্তারিত…

বাংলাদেশি ওষুধে ব্রিটিশ নারীর রোগমুক্তি

বিশ্বের অনেক দেশে অনলাইনে ওষুধ কেনা অনেকটা জনপ্রিয় হয়েছে। প্রেসকিপশন না পাওয়া, ডাক্তার দেখাতে না পারা, বিশেষ করে ওষুধের দাম বেশি হওয়ার কারণে অনলাইনে ওষুধ কিনছেন অনেকে। ব্রিটিশ এক নারীও কম দামে ওষুধ কিনতে অনলাইনের ওপর নির্ভর করেছিলেন।

বাংলাদেশ থেকে অনলাইনের মাধ্যমে ‘হেপাটাইটিস সি’ নিরাময়ের ওষুধ কিনেছিলেন জো শারাম নামে এক ব্রিটিশ নারী। এনএইচএস ইংল্যান্ডের তৈরি ওষুধ সেখানে সহজে পাওয়া গেলেও অনেক উচ্চমূল্যের ওষুধ হওয়ায় এগুলো শুধু বেশি অসুস্থ রোগীদের দেওয়া হয়ে থাকে। বিবিসির এক রিপোর্টে এ সংবাদ প্রকাশ পেয়েছে।বিস্তারিত…

সাজা মওকুফের পর কর্মবিরতি প্রত্যাহার করেছেন ইন্টার্ন চিকিৎসকেরা

বগুড়ার শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চারজন ইন্টার্ন চিকিৎসকের বিরুদ্ধে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের দেয়া শাস্তিমূলক ব্যবস্থা তুলে নেবার পর কর্মবিরতি প্রত্যাহার করেছেন ইন্টার্ন চিকিৎসকেরা।

দুপুরে স্বাস্থ্যমন্ত্রীর ধানমন্ডির বাসভবনে ইন্টার্ন চিকিৎসক পরিষদের সঙ্গে এক জরুরী বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের তথ্য কর্মকর্তা পরীক্ষিত চৌধুরী জানিয়েছেন, বৈঠকে কয়েকদিনের ধর্মঘটে দেশের চিকিৎসাসেবা মারাত্মকভাবে ব্যহত হবার ঘটনায় দু:খপ্রকাশ করেন ইন্টার্ন চিকিৎসক নেতৃবৃন্দ।বিস্তারিত…

শীতের স্বর্ণরাঙা রোদের ফুল

বাংলাদেশে শীতের সময় নানা রঙের ফুল ফোটে। অনেক ফুল সারাবছর ফুটলেও শীতের সময় সকালের রোদে যেন তাদের সৌন্দর্য আলাদা মাত্রা পায়।

 

‘বৃক্ষমানব’ রোগাক্রান্ত সাহানার সফল অস্ত্রোপচার

বাংলাদেশে বিরল ‘বৃক্ষমানব’ রোগে আক্রান্ত ১০ বছরের কন্যাশিশু সাহানা খাতুনের অস্ত্রোপচার হয়েছে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসাপাতালে।

সাহানাই বাংলাদেশের প্রথম নারী যে বিরল এ রোগে আক্রান্ত হয়েছে।

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইউনিটের সমন্বয়ক সামন্ত লাল সেন বিবিসি বাংলাকে জানিয়েছেন ‘অস্ত্রোপচার সফল হয়েছে। সাহানা ভালো আছে”।

সাহানার আর কোনও অস্ত্রোপচার লাগবে না বলেও আশা প্রকাশ করেছেন ডা: সেন।বিস্তারিত…

শীতে বেছে নিন উপযুক্ত সৌন্দর্য্য সামগ্রী

শীতে ত্বকের বাড়তি যত্নের প্রয়োজন হয়। কারণ, এ সময় আবহাওয়া ত্বককে রুক্ষ করে তোলে। এজন্য সব সময় সৌন্দর্য্য পণ্য সঙ্গে রাখা চাই।

ফেসওয়াশ : শরীরের অন্যান্য অংশের চেয়ে মুখ সব সময় উন্মুক্ত অবস্থায় থাকে। তাই মুখে শরীরের অন্যান্য অঙ্গের চেয়ে বেশি ময়লা জমে। যে কারণে মুখ পরিষ্কারে সঠিক সামগ্রী বেছে নিতে হবে। এমন ফেসওয়াশ নির্বাচন করুন যাতে এই রুক্ষ আবহাওয়ায় আপনার ত্বক কোমল থাকে।

লিপ বাম : রঙিন এবং সুবাসিত লিপবাম শীতের জন্য উপযোগী নয়। এইগুলো সাধারণত ঠোঁটকেই রঙিন করে। সুগন্ধহীন সাধারণ ঘন লিপবাম বেছে নিন। যেটা আপনার ঠোঁটে ময়েশ্চারাইজার ধরে রাখবে এবং ঠোঁট ফাটা থেকে রক্ষা করবে।বিস্তারিত…

ব্যাচেলর জীবনে বুয়ার প্রকারভেদ

খাদ্য, বস্ত্র, বাসস্থান ছাড়া মানবজীবন অচল। আর ব্যাচেলর জীবন অচল বুয়া ছাড়া। জীবন চলার পথে মেনে নিতে হয় অনেক কিছুই। যেমন মেনে নিতে হয় বুয়াদের যেকোনো আচরণ।

আঁকা: রাকিব রাজ্জাকউচ্চাভিলাষী বুয়া
এই বুয়ারা অর্থমন্ত্রী হলে এত দিনে দেশের অর্থনীতির বারোটা বেজে যেত। বছর বছর উচ্চাভিলাষী বাজেট পাস করে আমজনতার হার্টফেল করিয়ে ছাড়তেন। মেসে এই বুয়াদের এক কেজি চালের ভাত রান্না করতে বললে দেড় কেজি রান্না করে বসে থাকেন। ফলে ৩০ দিনের চাল শেষ হয় ২০ দিনেই।

আঁকা: রাকিব রাজ্জাকছিঁচকাঁদুনে বুয়া
তাঁরা অতিরিক্ত আবেগপ্রবণ। কোনো কাজে গন্ডগোল বাধালে এক ধমকে হাউমাউ করে কেঁদে ফেলেন। কেঁদে মানুষ জড়ো করে ফেলতেও ওস্তাদ তাঁরা! বাংলা সিনেমায় আবেগপ্রবণ মা কিংবা বোনের চরিত্রে খুব ভালো করার সম্ভাবনা আছে তাঁদের।
চিররোগী বুয়া
প্রতি সপ্তাহে তাঁদের অসুখ হবেই হবে। কোনো দিন জ্বর, কোনো দিন মাথাব্যথা, কোনো দিন বাতের ব্যথা। নিতান্তই কোনো দিন অসুস্থ না হলে তাঁদের শাশুড়ির মেয়ের ছেলের বোনের বাবার ভাইয়ের কিছু না কিছু একটা হবেই।

বাজারের ব্যাগধারী বুয়া
এই বুয়ারা বাসায় আসার সময় একটা খালি ব্যাগ নিয়ে আসেন। রান্না করে যাওয়ার সময় ব্যাগটার ওজন আশ্চর্যজনকভাবে কিঞ্চিৎ বেড়ে যায়!বিস্তারিত…

উৎসবে পুরুষের পছন্দ পাঞ্জাবী

15239147_1040588792735729_1898782461_n
মডেলঃ মাহাবুব

যে কোন উৎসেব পুরুষের পাঞ্জাবী চাই-ই। ছেলেদের পছন্দের তালিকায় শীর্ষে পাঞ্জাবি।

বর্তমান সময়ে ছেলেরা পাঞ্জাবীর ক্ষেত্রে রঙকেই প্রাধান্য দিয়ে থাকে।

একটা সময় ছিলো যখন পাঞ্জাবীর রঙ বলতে সাদা রঙটাকেই প্রাধান্য দেয়া হতো।

কিন্তু বর্তমান সময়টা ভিন্ন । এখনকার ছেলেদের কাছে পছন্দটা একটু আলাদা হয়ে থাকে।

বিভিন্ন রঙের পাঞ্জাবী এখন শপিংমল গুলিতে দেখা যায়।বিস্তারিত…

অতিমাত্রায় প্যারাসিটামল সেবন ঝুঁকিপূর্ণ

[আমাদের দেশে ফার্মেসিগুলো থেকে ডাক্তারের প্রেসক্রিপশন ছাড়াই অনেক ওষুধ কেনা যায়। তার মধ্যে সবচেয়ে বেশি বিক্রি হয় প্যারাসিটামল বা এই গ্রুপের অন্য ওষুধ। শিশু কিংবা বড়দের জ্বর, মাথাব্যথা, গা-ব্যথা এসবের জন্য প্রথম পর্যায়ে কেউই ডাক্তারের কাছে যেতে চায় না। নিজেরাই প্যারাসিটামল বা এই গ্রুপের অন্য নামের ওষুধ ফার্মেসি থেকে কিনে ডোজ শুরু করে। তবে, না জেনে ভুল মাত্রায় কিংবা অতিমাত্রায় এ ওষুধ খেলে নানা জটিলতা তৈরি হয়। শিশুদের ক্ষেত্রে এর ভয়াবহতা আরো বেশি। এসব বিষয়ে জানাচ্ছেন শিশু বিশেষজ্ঞ কামরুন নাহার লুনা।]

শিশু বিশেষজ্ঞ কামরুন নাহার লুনা চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তার প্র্যাকটিস চলাকালীন সময়ের একটি অভিজ্ঞতার কথা জানালেন। স্মৃতির পাতা থেকে তিনি বলেন, বেশ কয়েক বছর আগের কথা। সকালে স্যারের(সিনিয়র ডাক্তার) রাউন্ডের আগে পুরনো রোগীগুলো দেখে নিচ্ছিলাম। এ সময় স্যার ডেকে পাঠালেন। দৌড়ে গেলাম স্যারের রুমে। দেখি একটা মেডিকেল স্টুডেন্ট কাঁদো কাঁদো মুখে দাঁড়ানো আর তার মা একটা বাচ্চা কোলে চেয়ারে বসা। সে তার ৬ মাস বয়সি ৮ কেজি ওজনের বাচ্চাটাকে ৩ চামচ প্যারাসিটামল ড্রপ খাইয়েছে গত ২০ ঘন্টায়। স্যার মেয়েটাকে মৃদু বকার চেষ্টা করছেন। আমার প্রফেসর খুব নরম মনের মানুষ, কাউকে তেমন বকতে পারেন না। আমি যদিও তখন তার নব্য ট্রেইনি, খুব আদর করেন আমাকে, ভরসাও করেন আমার উপর। বললেন লুনা দেখতো এই মেয়ের কাণ্ড প্যারাসিটামল ড্রপকে চামচে করে খাইয়েছে। ডোজটা হিসাব করো, টক্সিক ডোজে পড়লে এন্টিডটটা শুরু করে দাও।বিস্তারিত…

ক্রিকেটের বাইরে নতুন যাত্রা শুরু করতে যাচ্ছেন তাসকিন

বাংলাদেশের তরুণ পেস বোলার তাসকিন আহমেদ ক্রিকেটের বাহিরে নতুন উদ্যোগ নিচ্ছেন। অন্যান্য ক্রিকেটারের মতন নিজেও নিজের ব্যবসা চালু করতে চলেছেন তাসকিন। অতি শীঘ্রই ‘তাসকিন টেরিটরি’ নামে রেস্টুরেন্ট খুলতে যাচ্ছেন তাসকিন আহমেদ।

Taskins-Territory-1-600x461

তাঁর সামজিক যোগাযোগ মাধ্যমে জানান, অতি শীঘ্রই মোহাম্মদপুর নিজস্ব বাসার কাছেই একটি রেস্টুরেন্ট খুলতে যাচ্ছেন তাসকিন। রেস্টুরেন্টটির কাজ প্রায় শেষের দিকে। উদ্বেধন করার পূর্বেই তাঁর ভক্তদের জন্য সামাজিক মাধ্যমে রেস্টুরেন্টির কিছু ছবি প্রকাশ করেন তাসকিন আহমেদ।

Taskins-Territory-2-600x461

তাসকিন তাঁর ভক্তদের জানান, অতিথ্য প্রদর্শনের জন্য রেস্টুরেন্টের ভিতরে থাকছে পুল সেন্টার। আরো থাকছে সুস্বাদু খাবারের আয়োজনও। ভক্তের এক প্রশ্নের জবাবে জানান, আগামী ডিসেম্বরেই রেস্টুরেন্টটির উদ্বেধন করা হবে।বিস্তারিত…

শিরোনাম